দাসপুরে নির্বাচনী প্রচারে গ্রামবাসীদের বোঝাতে গিয়ে বির্তকিত মন্তব্য করলেন ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষ। ৩০ মার্চ সকালে দাসপুর থানার তেমুয়ানিতে শিব শিতলা মায়ের পুজো দিয়ে ওই এলাকায় বাড়ি বাড়ি নির্বাচনী প্রচার সারছিলেন ভারতী ঘোষ। সেই সময়ই তিনি গ্রামবাসীদের বোঝাচ্ছিলেন, কেন্দ্রীয় বাহিনীর কাছে খবর গেলেই সে খবর উপর মহল মারফৎ তাঁর কাছেও পৌঁছে যাবে। এবার ভোটে বুথে বুথে থাকবে কেন্দ্রীয় বাহিনীই তাই তারা যেন ভয় না পায়।

ভারতী ঘোষের এই মন্তব্যে তোলপাড় রাজ্য রাজনীতি। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার দুই যুযুধান দল তৃণমূল ও সিপিএম উভয় দলেরই জেলা সদর দপ্তর থেকে প্রশ্ন তোলা হয়েছে এবার নির্বাচনে কেন্দ্রীয় বাহিনীর নিরপেক্ষতা নিয়ে।
জেলা তৃণমূলের সভাপতি অজিত মাইতি সাফ বলেন,আমি তো আগেই ঘাটালের জনসভায় বলেই ছিলাম বিজেপি কেন্দ্রীয় বাহিনীর সাথে হাত মিলিয়ে দিল্লি দখলের চেষ্টায় আছে। সেই গোপন আঁতাত আজ প্রকাশ্যে এল। অপর দিকে সিপিএমের পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা কমিটির সম্পাদক তরুণ রায় বলেন, রাজ্যে তৃণমূলের হাতিয়ার রাজ্য পুলিস আর কেন্দ্রের ক্ষমতায় থাকা বিজেপি কেন্দ্রীয় বাহিনীকে হাতের মুঠোয় রেখে ভোট করাবে এটাই দেশের চরম লজ্জা,গনতন্ত্রের অপমৃত্যু।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here